রংপুরে অস্ত্র মামলায় যুবকের ১৭ বছর সশ্রম কারাদন্ড

রংপুরে অস্ত্র মামলায় যুবকের ১৭ বছর সশ্রম কারাদন্ড

রংপুর জেলা প্রতিনিধি : রংপুরে অস্ত্র মামলায় আপস ওরফে অরেঞ্জ নামে এক যুবককে দোষী সাব্যস্ত করে ১৭ বছর সশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেছে আদালত। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে রংপুরের জেলা ও দায়রা জজ নিযামুল হক এ রায় প্রদান করেন। মামলার বিবরণে জানা গেছে, ২০১৭ সালের ৪ মে রংপুর নগরীর স্টেশন মুসলিম পাড়া এলাকায় কোরবান আলীর ছেলে আপস ওরফে অরেঞ্জকে সন্দেহজনকভাবে ঘোরা ফেরা করতে দেখে র‌্যাব ১৩ এর একটি দল। ওই এলাকা দিয়ে যাবার সময় র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে ছেলেটি দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করলে এলাকাবাসীর সহায়তায় র‌্যাব সদস্যরা তাকে আটক করে। এ সময় তার দেহ তল্লাশি করে একটি বিদেশী পিস্তল ও ২ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় র‌্যাবের ডিএডি রংপুরে অস্ত্র মামলায়

প্রিয়জিৎ বড়–য়া বাদী হয়ে কোতোয়ালি থানায় অস্ত্র আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। পরে তদন্ত শেষে কোতোয়ালি থানার এস আই ওই বছরের ২৫ জুলাই আদালতে চার্জশিট দাখিল করে। মামলায় বাদীসহ ১০ সাক্ষী ও জেরা গ্রহণ শেষে বিচারক আসামিকে দোষী সাব্যস্ত করে ১৭ বছরের সশ্রম কারাদন্ডের আদেশ প্রদান করেন। সরকার পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন পিপি এডভোকেট আব্দুল মালেক ও আসামি পক্ষে ছিলেন এডভোকেট বসুনিয়া মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম । সরকার পক্ষের আইনজীবী আব্দুল মালেক জানান তারা ন্যায় বিচার পেয়েছেন। অন্যদিকে আসামি পক্ষের আইনজীবী জানিয়েছেন তারা এ রায়ে খুশি নন। এ রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করা হবে।