নাটোরে হাত-পা বাঁধা অটোরিকশা চালকের মরদেহ উদ্ধার

নাটোরে হাত-পা বাঁধা অটোরিকশা চালকের মরদেহ উদ্ধার

নাটোর সদর উপজেলার একটি ক্ষেত থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় ইউসুফ আলী (২২) নামে এক ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

রোববার (১৪ অক্টোবর) সকাল ৯টার দিকে উপজেলার বারোঘড়িয়া এলাকার ধান ক্ষেত থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। নিহত ইউসুফ নাটোর শহরের দক্ষিণ বড়গাছা মহল্লার আব্দুল খালেকের ছেলে।

নাটোর সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. ফরিদুল ইসলাম  বলেন, ইউসুফ প্রতিদিনের মতো শনিবার (১৩ অক্টোবর) সকালে অটোরিকশা নিয়ে বাসা থেকে বের হয়ে যান। পরে রাতে বাসায় ফিরে আসেনি। স্বজনরা ওই রাতে বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করে তার সন্ধান পায়নি। পরদিন সকালে সদর উপজেলার বারোঘড়িয়া এলাকার স্থানীয় লোকজন ধান ক্ষেতে অজ্ঞাতপরিচয় যুবকের হাত-পা বাঁধা অবস্থায় মরদেহ দেখতে পেয়ে থানায় খবর দেয়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে মরদেহটি উদ্ধার করে। এসময় ঘটনাস্থলে এসে নিহতের মরদেহ দেখে স্বজনরা তার পরিচয় শনাক্ত করেন। এ অবস্থায় মরদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য নাটোর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

পুলিশ পরিদর্শক আরও বলেন, ধারনা করা হচ্ছে যাত্রীবেশে দুর্বৃত্তরা ইউসুফকে নির্জন স্থানে নিয়ে হাত-পা বেঁধে মারপিটসহ শ্বাসরোধ করে হত্যার পর মরদেহ ওই ক্ষেতে ফেলে যায়। এসময় অটোরিকশাটি ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানা তিনি।