সেমিফাইনালে উঠে নিশিকোরি-ওসাকার ইতিহাস

সেমিফাইনালে উঠে নিশিকোরি-ওসাকার ইতিহাস

পাঁচ সেটের লড়াইয়ে সপ্তম বাছাই মারিন চিলিচকে হারিয়ে ইউএস ওপেনের সেমিফাইনালে উঠেছেন জাপানের কেই নিশিকোরি।

নিউ ইয়র্কে বুধবার রাতে ৪ ঘণ্টা আট মিনিট স্থায়ী ম্যাচটি ২১তম বাছাই নিশিকোরি জিতেছেন ২-৬, ৬-৪, ৭-৬ (৭-৫), ৪-৬, ৬-৪ গেমে।

এ নিয়ে তৃতীয়বারের মতো ইউএস ওপেনের সেমিফাইনালে উঠলেন নিশিকোরি। ২৮ বছর বয়সি এই খেলোয়াড় শেষ চারে সার্বিয়ার নোভাক জকোভিচ অথবা অস্ট্রেলিয়ার জন মিলম্যানের মুখোমুখি হবেন।

একই দিন মেয়েদের এককের সেমিফাইনালে উঠেছেন নিশিকোরির স্বদেশী নাওমি ওসাকা। ২০ বছর বয়সি এই খেলোয়াড় মাত্র ৫৮ মিনিটেই ইউক্রেনের সিয়া সুরেনকোকে ৬-১, ৬-১ গেমে হারিয়ে নিজের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেন।

১৯৯৬ সালে উইম্বলডনে কিমিকো ডেটের পর প্রথম জাপানিজ নারী খেলোয়াড় হিসেবে কোনো গ্র্যান্ড স্লামের সেমিফাইনালে উঠলেন ২০তম বাছাই ওসাকা। শেষ চারে তিনি আমেরিকার ১৪তম বাছাই ম্যাডিনসন কিসের বিপক্ষে লড়বেন।

নিশিকোরি ও ওসাকা সেমিফাইনালে ওঠায় আরেকটি ইতিহাসও রচিত হয়েছে। টেনিসের উন্মুক্ত যুগে এই প্রথম জাপানের পুরুষ ও নারী খেলোয়াড় কোনো গ্র্যান্ড স্লামের সেমিফাইনালে উঠলেন।

এটিকে দারুণ অর্জন হিসেবেই দেখছেন নিশিকোরি, ‘এটা দারুণ ব্যাপার। আশা করি, মানুষ আমাদের খেলা দেখেছে। অনেক মানুষ আমাদের সমর্থনে গলা ফাটিয়েছে।’

পাশাপাশি ওসাকার সামনে শিরোপা জয়ের সুযোগও দেখছেন নিশিকোরি, ‘ওসাকা ভালো করছে। কারণ, সে একটি মাস্টার্স জিতেছে (ইন্ডিয়ান ওয়েলস)। আমার মনে হয়, সে শিরোপা জিততে পারে। এটা তার জন্য বড় সুযোগ।’