করোনাযুদ্ধে ভাড়াটিয়াদের সহমর্মী হলেন বাড়িওয়ালারা

করোনাযুদ্ধে ভাড়াটিয়াদের সহমর্মী হলেন বাড়িওয়ালারা

আপনারাই আমার অক্সিজেন। আপনারা সুস্থ থাকলেই আমি সুস্থ। আপনাদের থেকে গুরুত্বপূর্ণ আমার কাছে কিছুই নেই। আপনাদের কাছে অনুরোধ আপনারা ১ মাস নিজ বাসায় অবস্থান করুন।সরকারের পক্ষ থেকে প্রতিটি নাগরিকের বাসায় ১ মাসের যাবতীয় সব ধরনের খাবার পানি মেডিসিন মাস্ক আমরা পৌছে দিচ্ছি।করোনা ভাইরাস ইস্যুতে জাতির উদ্দেশ্যে হৃদয়গ্রাহী ভাষণটি দিয়েছেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো।

কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো

আমাদের দেশেও ছড়িয়ে গেছে প্রানঘাতীক করোন ভাইরাস। ইত্যেমধ্যে ২ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছে। আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে রয়েছে ২৭ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ী ফিরেছেন ৫ জন। কাল এর সংখ্যাটি কতো হবে তা আমরা জানিনা? এক মাস পরে সংখ্যাটা কত হবে? দিন দিন জ্যামিতির গ্রাফের মত সংখ্যাটি বাড়ছে। অর্থনীতিতে পড়ছে বিপুল প্রভাব। করোনা ভাইরাস মহামারী আকার ধারণ করার কারণে দেশের সবকিছুই স্থগিত হয়ে পড়েছে। মানুষ কর্মস্থলে যেতে পারছেনা। ফলে জনজীবন হয়ে পড়ছে বিপর্যয়। অনেকেই আবার জীবনের ঝুকি নিয়ে যাচ্ছেন কর্মস্থলে। কেনানা প্রতিমাসে তাকে বাড়ীভাড়া পরিশোধ করতে হবে। সন্তানে স্কুলের ফি দিতে হবে। নিত্যপ্রয়োজনী দ্রব্যসামগ্রি কিনতে হবে। এছড়াও আরো তো আছেই!তবে এর কিছু অংশ যদি সেভ করা যেতো তবে তার পরিবার জন্য হতো অর্শীবাদ ।

এমন পরিস্থিতি বিবেচনায় করে এবার রাজধীনিতে এক উদার দৃষ্টান্ত রাখলেন অভিনেত্রী ভাবনা ও তার পরিবার। রাজধানীর হাজারীবাগ এলাকায় তাদের মালিকানায় ৬ তলা বাড়িতে ছয়টি পরিবার ভাড়া থাকে। বর্তমান করোনা পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে তাদের কাছ থেকে মার্চ মাসের ভাড়া না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন তিনি ভাবনার বাবা নির্মাতা হাবীবুর রহমান হাবিব জানালেন, রাজধানীর হাজারীবাগ এলাকায় তাদের মালিকানায় ৬ তলা বাড়িতে ছয়টি পরিবার ভাড়া থাকে। বর্তমান করোনা পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে তাদের কাছ থেকে মার্চ মাসের ভাড়া না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন

এছাড়া রাজধানীর জুরাইনের বাসিন্দা শেখ শিউলি হাবিব তার ভাড়াটিয়াদের এক মাসের বাড়ি ভাড়া মওকুফ করে অন্য রকম এক উদাহরণ তৈরি করেছেন ঢাকার এক বাড়িওয়ালা।

তিনি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে শেখ শিউলি হাবিব লেখেন, করোনাভাইরাস মহামারী আকার ধারণ করার কারণে বাংলাদেশের সবকিছুই স্থগিত হয়ে গেছে। কর্মজীবী মানুষ কর্মস্থলে যেতে পারছে না, তাই আমি এদেশের একজন ক্ষুদ্র নাগরিক হিসেবে আমার বাসার সকল ভাড়াটিয়াদের মার্চ মাসের ভাড়া মওকুফ করে দিলাম।

এছাড়াও শেখ শিউলি হাবিব উদ্যোগের প্রশংসার মধ্যেই আরো একজনের খোঁজ পাওয়া গেলো। মুহিব রহমান নামের  এক ব্যাক্তি মওকুফ করে দিয়েছেন ভাড়াটিয়াদের ভাড়া। তাও এক নয় দুই মাসের ভাড়া! আর ওই টাকা দিয়ে যেন অন্যকে সাহায্য করা হয় সেজন্য জানিয়েছেন অনুরোধ। শনিবার (২১ মার্চ) মুহিব রহমান  তার ফেসবুক ওয়ালে দেওয়া এক স্ট্যাটাসে ভাড়া মওকুফের বিষয়টি জানান। নোটিশে লেখা ছিল, ‘প্রিয় ভারাটিয়াগণ, দেশের সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে আপনাদের আগামী দুইমাসের ভাড়া মওকুফ করা হলো। বিশেষ অনুরোধ- ১. ভাড়ার টাকা দিয়ে পারলে কারও সাহায্য করুন। ২. ইলেকট্রিক বিল সময়মতো নিজ দায়িত্বে পরিশোধ করুন। ৩. কিছুক্ষণ পরপর সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে নেবেন। ৪. অপ্রয়োজনে বাসার বাইরে যাবেন না।

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে ফেনীর নিজাম উদ্দিন পুলক নামে এক ভবন মালিক নিজের বাড়ির ভাড়াটিয়াদের এক মাসের ভাড়া (এপ্রিল মাস) মওকুফ করে দিয়েছেন। স্ট্যাটাসে তিনি লেখেন ‘ফেনী শহরের প্রত্যেক বাড়ির মালিকের প্রতি আবেদন- করোনার প্রভাবে মানুষ একটু সমস্যায় আছে তাই, বেশি না হোক অন্তত (১ মাস- এপ্রিল মাসের) বাড়ি ভাড়া মওকুফ করে দেন। আমিও ২১ পরিবার থেকে নিচ্ছি না, মানুষ মানুষের জন্য। আসুন সবাই মিলে অন্তত -এইটুকু করি

প্রাণঘাতীক এই ভাইরাসের প্রতিষোধক ওষুধ আবিস্কার করার জন্য বিশ্বের সকল দেশ অপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচার একমাত্র উপায় এখন বিশেষ সতর্কতা।