রাত ২:৫২, মঙ্গলবার, ২৯শে মে, ২০১৭ ইং
/ আর্ন্তাজাতিক / সিরিয়ায় উদ্বাস্তুদের বাসবহরে হামলায় নিহত শতাধিক
সিরিয়ায় উদ্বাস্তুদের বাসবহরে হামলায় নিহত শতাধিক
এপ্রিল ১৬, ২০১৭

করতোয়া ডেস্ক: সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশিত একটি ভিডিও থেকে নেওয়া একটি স্থিরচিত্র, এতে রাস্তায় পাশে দগ্ধ বাস ও রাস্তায় দগ্ধ গাড়ি দেখা যাচ্ছে; আত্মঘাতী গাড়িবোমা হামলার পরের দৃশ্য। দুই বছরেরও বেশি সময় ধরে বিদ্রোহীদের দ্বারা অবরুদ্ধ উত্তর সিরিয়ার সরকারি বাহিনী নিয়ন্ত্রিত দুটি গ্রাম থেকে বাসিন্দাদের সরিয়ে নেয়ার সময় তাদের বহনকারী বাসবহরে আত্মঘাতী গাড়িবোমা হামলায় শতাধিক ব্যক্তি নিহত হয়েছে

 

 সিরিয়ায় বিদ্রোহী ও সরকার পক্ষের মধ্যে অবরুদ্ধ এলাকার বাসিন্দাদের  সরিয়ে নেওয়ার চুক্তির আওতায় আলেপ্পোর নিকটবর্তী দুটি শিয়া অধ্যুষিত গ্রাম থেকে এদের সরিয়ে নেওয়া হচ্ছিল, জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স, দ্য ওয়াশিংটন পোস্ট। সরকার নিয়ন্ত্রিত আলেপ্পোতে সরিয়ে নেওয়ার আগে শনিবার বিকালে একটি ট্রানজিট পয়েন্টে বিদ্রোহীদের পাহারায় গ্রামদুটির বাসিন্দারা বাস ছাড়ার অনুমতির অপেক্ষায় থাকার সময় হামলাটি চালানো হয়।

 

 সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে ঘটনাস্থলে নিহতদের ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা মৃতদেহ দেখানো হয়েছে। পুড়ে যাওয়া বাসগুলো যাত্রীদের মালামাল দিয়ে ঠাসা ছিল। সন্ধ্যার আগে রাস্তায় ব্যাগে ভরা মৃতদেহগুলো লাইন দিয়ে রেখে দেওয়া হয়েছে। শুক্রবার উত্তরাঞ্চলীয় শহর ফৌয়া থেকে অবরুদ্ধ ওই বাসিন্দাদের নিয়ে বাসগুলো রওনা হয়েছিল। বাসগুলোর যাত্রীরা দুই বছরেরও বেশি সময় ধরে উগ্রপন্থি বিদ্রোহীদের অবরোধের মধ্যে ছিল। আতঙ্কের মধ্যে বসবাস করা এসব মানুষের পর্যাপ্ত খাবার ও ওষুধও ছিল না।


উদ্ধারকারী গোষ্ঠী হোয়াইট হেলমেট জানিয়েছে, তাদের স্বেচ্ছাসেবীরা বাসগুলোর ধ্বংসস্তূপ থেকে শতাধিক লাশ উদ্ধার করেছে। গোষ্ঠীটি আরও ৫৫ জন আহত হয়েছে বলে জানিয়েছে। নিহতদের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। অপরদিকে যুক্তরাজ্য-ভিত্তিক পর্যবেক্ষক গোষ্ঠী সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস নিহতের সংখ্যা অন্তত ১১২ জনে দাঁড়িয়েছে বলে জানিয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত কোনো গোষ্ঠী হামলায় দায় স্বীকার করেনি।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :




Go Back Go Top