সকাল ৬:০৬, শুক্রবার, ২৩শে জুন, ২০১৭ ইং
/ রাজনীতি / বিএনপির গণতন্ত্র আসলে মেজিকের তাস: কাদের
বিএনপির গণতন্ত্র আসলে মেজিকের তাস: কাদের
মে ১৮, ২০১৭

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়ুদল কাদের বলেছেন, বিএনপির মুখে গণতন্ত্রের বুলি ‘ভূতের মুখে রাম নাম’। বিএনপির গণতন্ত্র আসলে মেজিকের তাস।  বৃহস্পতিবার রাজধানীর ইউরো আসিয়ানো রমনা গ্রিন রেস্তোঁরায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী হল শাখার ছাত্রলীগ নেতাদের সঙ্গে এক মতবিনিময় অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি কথায় কথায় রং বদলায়। কখনো বিবি, কখনো গোলাম। তাদের গণতন্ত্র আসলে মেজিকের তাস। তাদের বহুদলীয় গণতন্ত্র ছিল, রাতের বেলায় কারফিউ আর দিনের বেলায় খাল কাটা। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির নির্বাচন বর্জন করল গণতন্ত্র উদ্ধারের নামে। কিন্তু গণতন্ত্র উদ্ধারের নামে তারা ১৬৫ জন মানুষকে পুড়িয়ে হত্যা করল। অগ্নিসংযোগ ও ভাঙচুর করে ধ্বংসাত্মক কর্মকান্ড চালালো। রাস্তা ও গাছ কেটে ফেলল। শিক্ষক ও ছাত্রদের অন্ধ করে দিল। ২০১৩ সালের ৫ মে হেফাজতের সমাবেশ দেখে খালেদা জিয়া গদ গদ হয়ে ঢাকাবাসীকে তাতে যোগ দিতে আহ্বান জানালো। এর পর বায়তুল মোকররমে মসজিদে আমরা আগুণ জ্বলতে দেখলাম। কোরআন শরীফ পুড়তে দেখলাম। এটা কি বিএনপির গণতন্ত্র? পেট্রোল বোমা দিয়ে মানুষ মারা কি তাদের গণতন্ত্র?

হাওড় অঞ্চলের দুর্গত মনুষের ত্রাণ নিয়ে বিএনপি নেতাদের বক্তব্যের সমালোচনা করে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি নেতারা হাওড় নিয়ে এতো কথা বললেন। কিন্তু তাদের নেত্রী খালেদা জিয়া তিন তিনবার প্রধানমন্ত্রী ছিলেন। তিনি কি একবারের জন্যও হাওড়ে গিয়েছেন। তবে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর একবার হাওড় অঞ্চলে গিয়েছিলেন। সেখানে গিয়ে তিনি দুর্গত মানুষদের কোনো সাহায্য দেননি। বরং যারা সাহায্য নিতে এসেছিলেন, তারা খালি হাতে ফিরে গেছেন। তিনি গিয়েছিলেন সেখানে ফটো সেশন করতে। এর পর ঢাকায় এসে এটা নিয়ে বড় বড় কথা বলছেন। এটাই তাদের রাজনীতি। ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, তোমরা ছাত্র রাজনীতিকে আকর্ষনীয় করতে চাইলে, আগে নিজেদের আকর্ষনীয় করতে হবে। নৈতিকতা দিয়ে ছাত্র রাজনীতিকে আকর্ষনীয় করতে হবে। সাধারণ মানুষ নেতাদের সামনে কিছু বলে না। কিন্তু ভেতরে ভেতরে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। যা পরবর্তীতে রাজনীতির ক্ষতি হয়। তবে মাঝে মাঝে ছাত্রলীগের কিছু কিছু ঘটনা আমাদের লজ্জায় ফেলে। এগুলো করা যাবে না। সরকারের উন্নয়নের কথা তুলে ধরে ওবায়দুল কাদের বলেন, গত ২৮ বছরে বাংলাদেশের যে উন্নয়ন না হয়েছে তা গত ৩ বছরে বেশি হয়েছে। দারিদ্রতা নির্মূলে ভারতের চেয়েও বাংলাদেশ এগিয়ে রয়েছে। এ মতবিনিময় সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের শিক্ষা ও মানব সম্পদ উন্নয়ন সম্পাদক শামসুনাহার চাপা, কেন্দ্রীয় সদস্য মারুফা আক্তার পপি, ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন, ঢাবির শাখার সাধারণ সম্পাদক মোতাহার হোসেন প্রিন্স প্রমুখ।

 



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :




Go Back Go Top