রাত ৪:০৯, শনিবার, ২১শে জানুয়ারি, ২০১৭ ইং
/ আইন-আদালত / ছিনতাইকারী ধরার পর চোরাই ল্যাপটপের ভান্ডার
ছিনতাইকারী ধরার পর চোরাই ল্যাপটপের ভান্ডার
January 8th, 2017

চুরি-ছিনতাইয়ের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ঢাকার বিভিন্ন এলাকা থেকে ছয় জনকে গ্রেফতারের পর ৯০টি চোরাই ল্যাপটপ উদ্ধার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত উপ কমিশনার মো. রাজিব আল মাসুদ জানিয়েছেন, প্রামাণ সাপেক্ষে এসব ল্যাপটপ তারা মালিকের কাছে ফেরত দেওয়ার কথা ভাবছেন।

রোববার দুপুরে তিনি জানান, শনিবার রাতে রাজধানীর মিরপুর, পল্টন ও পান্থপথ এলাকা থেকে ওই ছিনতাইকারী চক্রের ছয় সদস্যকে তারা গ্রেফতার করেন। ছিনতাইয়ের একটি ঘটনা নিয়ে তদন্ত করতে গিয়ে ওই চক্রের সন্ধান পাওয়া যায়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানিয়েছে- বিভিন্ন এলাকা থেকে ছিনতাই ও চুরি করে তারা ল্যাপটপগুলো জমা করেছে। রাজিব আল মাসুদ জানান, প্রথমে মিরপুর-২ নম্বরে স্টেডিয়াম এলাকা থেকে তিন জনকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা পুলিশ। পরে তাদের দেওয়া তথ্যেলর ভিত্তিতে পল্টন থেকে একজনকে এবং তাকে জিজ্ঞাসাবাদের পর মিরপুরের একটি বাসা থেকে আরেকজনকে গ্রেফতার করা হয়। মিরপুরের ওই বাসায় ৫৬টি ল্যাপটপ পাওয়া যায়। ওই বাসা থেকে গ্রেফতার ব্যক্তির দেওয়া তথ্য অনুযায়ী বসুন্ধরা সিটির লেভেল-৫ এর এবি ইলেক্ট্রনিক্সে অভিযান চালিয়ে ৩৪টি চোরাই ল্যাপটপসহ আরও একজনকে গ্রেফতার করা হয় বলে পুলিশ কর্মকর্তা রাজিব জানান। তিনি বলেন, ল্যাপটপ চুরি-ছিনতাইয়ের ঘটনায় ঢাকার বিভিন্ন থানায় সাধারণ ডায়েরি রয়েছে। উদ্ধার করা ল্যাপটপের তথ্যর ঢাকার থানাগুলোতে পাঠানো হবে। জিডির তথ্যব মিলিয়ে মালিকদের কাছে এগুলো ফেরত দেওয়া হবে। গ্রেফতার ছয়জনের নাম পরে প্রকাশ করা হবে বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।  

 



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :